স্থগিতাদেশ চেয়ে আবারও হারল এলআর গ্লোবাল

স্টাফ রিপোর্টার : দ্বিতীয় দফায় ডিবিএইচ ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড ও গ্রীণ ডেল্টা মিউচ্যুয়াল ফান্ডের অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনে স্থগিতাদেশ চেয়ে করা মামলায় হারল এলআর গ্লোবাল বাংলাদেশ।

বৃহস্পতিবার, ১২ মার্চ আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চ চেম্বার জজের দেয়া স্থগিতাদেশ প্রত্যাহারের রায় বহাল রেখে রায় দিয়েছে। এর আগে আরেক মামলায় গত ৮ ডিসেম্বর চেম্বার জজের দেয়া স্থগিতাদেশ প্রত্যাহারের রায় বহাল রাখে আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চ।

এদিন বিবাদিদের পক্ষে ব্যারিস্টার মুস্তাফিজুর রহমান, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের পক্ষে অ্যাডভোকেট প্রবীর নিয়োগী, রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী অ্যার্টনি জেনারেল মাহবুবে আলম ও অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান এলআর গ্লোবাল বাংলাদেশের আইনজীবী উপস্থিত ছিলেন।

আগেরবারের ন্যায় এবারও ডিবিএইচ ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড ও গ্রীণ ডেল্টা মিউচ্যুয়াল ফান্ডের অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনে স্থগিতাদেশ চেয়ে হাইহোর্টে মামলা করেছিল এলআর গ্লোবাল। এবার কারন দর্শানোর সুযোগ না দিয়ে অ্যাসেট ম্যানেজার পরিবর্তন করতে চাওয়ায় মামলা দায়ের করে এলআর গ্লোবাল। ওই মামলায় গত ১৭ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্ট ৬ মাসের স্থগিতাদেশ দিয়েছিল। তবে গত ১০ মার্চ চেম্বার জজ ২ দিনের জন্য স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার করে। যা আজ বহাল রেখেছে আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চ।

গত ২৯ অক্টোবর ইউনিটহোল্ডাররা ট্রাস্টি প্রতিষ্ঠান বিজিআইসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও ট্রাস্টি সদস্য আহমেদ সাইফুদ্দিন চৌধুরীকে অ্যাসেট ম্যানেজার পরিবর্তনে চিঠি দিয়েছিল। এই পরিবর্তনে ২ দফায় স্থগিতাদেশ চেয়ে রিট করেছিল বর্তমান অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান এলআর গ্লোবাল বাংলাদেশ।

মিউচ্যুয়াল ফান্ড আইনের ৩১ দ্ধারা অনুযায়ি, যেকোন ফান্ডের দুই-তৃতীয়াংশ বা কমপক্ষে ৬৬.৬৭ শতাংশ ইউনিটহোল্ডার অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনের জন্য আবেদন করতে পারেন। এজন্য ট্রাস্টির কাছে আবেদন করতে হয়। যা পরবর্তীতে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) অনুমোদনক্রম ট্রাস্টি বাস্তবায়ন করে। আর এই আইনের ধারা অনুযায়িই ডিবিএইচ ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড ও গ্রীণ ডেল্টা মিউচ্যুয়াল ফান্ডের অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনে ট্রাস্টিকে চিঠি দিয়েছে ইউনিটহোল্ডাররা। তারা এলআর গ্লোবালের পরিবর্তে আইডিএলসি অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠানকে চায়।

ডিবিএইচ ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ডটির অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনে ৭২.৭৫ শতাংশ ইউনিটধারী আবেদন করেছেন। এই ইউনিটধারী প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে- ব্র্যাক, ব্র্যাক ব্যাংক, ডেল্টা ব্র্যাক হাউজিং, আইডিএলসি ইনভেষ্টমেন্টস, ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক, ভিআইপিবি অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট, আইডিএলসি অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স, এজ অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট ও এশিয়ান টাইগার ক্যাপিটাল পার্টনারস অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট।

এদিকে গ্রীণ ডেল্টা মিউচ্যুয়াল ফান্ডের অ্যাসেট ম্যানেজার প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনে ৭০.১০ শতাংশ ইউনিটধারী আবেদন করেছেন। এই ইউনিটধারী প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে- ব্র্যাক ব্যাংক, এনসিসি ব্যাংক, ইস্টার্ন ব্যাংক, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স, ডেল্টা ব্র্যাক হাউজিং, গ্রীণ ডেল্টা ইন্স্যুরেন্স, আইডিএলসি ইনভেষ্টমেন্টস, আইডিএলসি অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট, ভিআইপিবি অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট, এজ অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট, ভ্যানগার্ড অ্যাসেট ম্যানেজম্যান্ট, একজন বিদেশী বিনিয়োগকারী ও অগ্রনী ইক্যুইটি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here