সূচক ২০ হাজারও কোন ব্যাপার না-রকিবুর রহমান

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) পরিচালক রকিবুর রহমান বলেন, আমার ধারনা আগামি বছরে ৫ হাজার কোটি টাকা লেনদেন হবে। আর সূচক কোন ব্যাপার না। এটি ১০ হাজার উঠবে, ১৫ হাজার উঠবে, ২০ হাজার উঠবে। এটা কোন বিষয় না। এটি শুধুমাত্র শেয়ার দরকে ইঙ্গিত করে।

শনিবার (০৪ সেপ্টেম্বর) ডিএসইর নতুন ট্রেক হস্তান্তর অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে অংশগ্রহন করেন বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম। আর অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ডিএসইর চেয়ারম্যান মো: ইউনুসুর রহমান।

রকিবুর রহমান বলেন, আজকে ভারতের শেয়ারবাজারের সূচক ৫৪ হাজার। তো সূচক কোন ব্যাপার না। শেয়ারের দাম বাড়লে, সূচক বাড়বে।

অনেকে শেয়ারবাজার টিকবে কিনা জিজ্ঞেস করে উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমি বলি ১০০% টিকবে। কারন ট্রেডিং মার্কেট টিকে। তবে হ্যা কারেকশন হতে পারে। যেমন ৫০ টাকার শেয়ার যখন ১০০ টাকায় উঠে, সেটি ৮০ টাকায় নামতে পারে। তবে সেটি ৫০ টাকায় নামবে না।

উপস্থিত সবার উদ্দেশ্যে ডিএসইর এই পরিচালক বলেন, আপনারা দেখেন মিউচ্যুয়াল ফান্ডগুলো কি পরিমাণ লভ্যাংশ ঘোষণা দিয়েছে। এই খাতটি আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। পৃথিবীর সবদেশে মিউচ্যুয়াল ফান্ড বাজারকে স্থিতিশীল করে। দেশে সেই মিউচ্যুয়াল ফান্ডের লভ্যাংশ ঘোষণা দেখে আমি নিজেই বেহুশ হয়ে গেছি। তাদের ব্যবসায়িক অর্জন দেখে অবাক হয়ে গেছি। এটা অবিশ্বাস্য (আনবিলিভঅ্যাবল)।তিনি বলেন, বর্তমান কমিশন শেয়ারবাজারকে বিশ্ব দরবারে তুলে ধরছেন। তারা এরইমধ্যে দুবাই ও আমেরিকা রোড শো করেছেন। এরমধ্যে আমেরিকায় বাংলাদেশ অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি নিয়ে আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছে বলে জেনেছি।

মৌলিক শেয়ারের বিনিয়োগ শুরু হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, এই বাজার পড়বে না। দর কারেকশন হবে।

ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলের, তারা ১০ লাখ টাকা এনে খেলাধুলা শুরু করে দেয়। এ করতে গিয়ে কোনদিক দিয়ে সেই টাকা চলে যায়, পরে চিল্লাচিল্লি করে।

তবে এই বাজারে হাজারো বিনিয়োগকারী আছে বলে জানান তিনি। এখানে শুধু ছোট বা ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারী না, আমরাও আছি। আরও বড় বিনিয়োগকারী আছে। তারা কিন্তু আবেগ দিয়ে চলে না। তাদের লস নাই। তারা বিনিয়োগ করে।

এদিন নতুন ৫২টি প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধির হাতে ট্রেক সনদ তুলে দেওয়া হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here