শিশুর ব্রেথ হোল্ডিং স্পেল হলে করণীয়

বাচ্চা জেদ করলে, রাগ করলে, আঘাত পেলে কান্না শুরু করে। কান্নার সময় দম নিয়ে আর ছাড়ে না। ওই সময় বাচ্চা ফ্যাকাশে হয়ে যায়, ঠোঁট নীলচে হয়ে যায়, আর অজ্ঞানও হয়ে যায়। এ ছাড়া বাচ্চার শরীর বাঁকা হয়ে যেতে পারে আর চোখও ওল্টাতে পারে যেটা এক মিনিটের কম সময় স্থায়ী হয়।

এটাকেই ব্রেথ হোল্ডিং স্পেল বলে। এই অবস্থার পর বাচ্চা দ্রুত সুস্থ হয়ে যায়। এটাকে খিঁচুনির সঙ্গে মিলিয়ে ফেলা যাবে না।

কারণ

এটা একটি রিফ্লেক্স সমস্যা যেটার কারণ বেশির ভাগ ক্ষেত্রে অজানা তবে কিছু কিছু ক্ষেত্রে নিম্নোক্ত কারণ থাকতে পারে—

♦ পারিবারিক ইতিহাস

♦ আয়রনের ঘাটতিজনিত রক্তশূন্যতা

♦ জেনেটিক কারণ

কতবার বা কত দিন থাকতে পারে

মাসে এক-দুইবার থেকে শুরু করে প্রতিদিন এক-দুইবার পর্যন্ত হতে পারে। সাধারণত ছয় মাস বয়সের পর থেকে পাঁচ বছর বয়স পর্যন্ত থাকতে পারে। এরপর আর হয় না।

করণীয়

♦ স্পেল চলাকালীন সময়ে আতঙ্কিত না হয়ে বাচ্চা যেন পড়ে গিয়ে বা কোনোভাবে আঘাত না পায় সেদিকে লক্ষ রাখতে হবে।

♦ অজ্ঞান হয়ে গেলে বাচ্চাকে এক পাশে কাত করে শুইয়ে দিতে হবে। মাথায় ঠাণ্ডা পানিতে কাপড় ভিজিয়ে মুছিয়ে দেওয়া যায়।

♦ স্পেল শেষ হয়ে যাওয়ার পর তাকে আদর করে দিন, কিন্তু অতিরিক্ত মনোযোগ দেবেন না, প্রশ্রয় দেবেন না বা যে কারণে জিদ করেছিল সেটা দিয়ে দেবেন না। তাহলে পরবর্তী সময়ে সমস্যা বাড়বে।

♦ যদি এক মিনিটের বেশি দম বন্ধ থাকে বা অজ্ঞান থাকে তাহলে সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালে যোগাযোগ করুন।

♦ বাচ্চার রক্তশূন্যতার সমস্যা থাকলে তা নির্ণয় করে চিকিৎসা করতে হবে।

♦ বাচ্চার জেদ বা আচরণজনিত সমস্যার সমাধান।

একজন অভিজ্ঞ শিশু নিউরোলজি বিশেষজ্ঞের পরামর্শ গ্রহণ করুন। বাচ্চার একই সঙ্গে অন্য কোনো নিউরোলজিক্যাল সমস্যা বা আচরণজনিত সমস্যা আছে কি না তা নির্ণয় করতে হবে।

পরামর্শ দিয়েছেন

ডা. শাওলী সরকার

সহকারী অধ্যাপক

শিশু নিউরোলজি, ঢাকা শিশু হাসপাতাল

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here