পানের কত গুণ!

পান বেশ জনপ্রিয় আমাদের দেশে। গ্রাম-গঞ্জ থেকে শহরেও এক খিলি পানের কদর এখনো ফুরিয়ে যায়নি। যারা এটা পছন্দ করেন না কিংবা খাওয়ার অভ্যাস বা আগ্রহ নেই, তাদেরও  আনন্দ উদযাপন বা বিশেষ উপলক্ষে পান চিবোতে দেখা যায়। অতি প্রাচীনকাল থেকেই এ অঞ্চলে পানের প্রচলন রয়েছে।

সাধারণত এর সুগন্ধ এবং স্বাদে বিমোহিত অনেকে। এটাকে প্রাকৃতিক ‘মাউথ ফ্রেশনার’ হিসেবে মনে করা হয় আয়ুর্বেদে পানকে কেবল জনপ্রিয় হিসেবে তুলে ধরা হয়নি, এর ওষধি গুণসহ নানা ধরনের স্বাস্থ্যগত উপকারিতার কথা তুলে ধরা হয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে, পানপাতায় রয়েছে রোগ নিরাময়ের বেশ কিছু উপাদান।

এই পাতায় প্রচুর পানি থাকে। ক্যালোরি নেই বললেই চলে। এতে নিম্নমাত্রায় ফ্যাট ও মধ্যম মাত্রার প্রোটিনও রয়েছে। বলা হয়, পানপাতায় আয়োডিন, পটাশিয়াম, ভিটামিন এ, ভিটামিন বি১, ভিটামিন বি২ এবং নিকোটিনিক এসিড ভরপুর মেলে।

ভারতের আয়ুর্বেদ বিশেষজ্ঞ ড. ডিক্সা ভাস্বর তার ইনস্টাগ্রামে পানের বিস্ময়কর সব উপকারিতার কথা জানিয়েছেন। তিনি জানান, কাশি, অ্যাজমা, মাথাব্যথা, রিনিটিস, বাতের ব্যথা, অ্যানোরেক্সিয়ার মতো নানা সমস্যায় পানের ব্যবহার বহুল প্রচলিত। এর ব্যবহারে ব্যথা, ইনফ্লামেশন এবং ফোলাভাব নিরাময়ে উপকার মেলে।

ভিটামিন সি, থিয়ামিন, নিয়াসিন, রিবোফ্লাভিন এবং ক্যারোটিনের মতো উপকারি উপাদানসহ ক্যালসিয়ামের দারুণ এক উৎস পান।

পান চিবোতে অনেকেরই ভালো লাগে না। কিন্তু এর স্বাদ ও গন্ধের তীব্রতা ভালো লাগার মতো। এটা আস্বাদনে অন্য উপায়ও রয়েছে। তবে এখানে কেবল পানপাতার উপকারিতা তুলে ধরা হয়েছে। পান বলতেই তার সঙ্গে সুপারি, জর্দা, চুন বা খয়ের মিশিয়ে খাওয়ার যে পদ্ধতি প্রচলিত তার কথা এখানে বলা হয়নি।

এই বিশেষজ্ঞ জানান, কচকচে নারকেল এবং মৌরিদানা দিয়ে অনায়াসেই পান খাওয়া যায়। চুন, খয়ের, জর্দা বাদ দিয়েও পান খাওয়ার উপায় রয়েছে। পান খাওয়ার অভ্যাস না করেও এর উপকারি উপাদানগুলো গ্রহণে একটি রেসিপিও দিয়েছেন তিনি। এর জন্যে লাগবে- ৪টা পান, ৪ টেবিল চামচ গুলকান্দ (সুপাশ শপে মেলে, গোলাপের পাঁপড়ি দিয়ে বানানো এক ধরনের মিষ্টি ও সুস্বাদু পেস্ট), এক টেবিল চামচ গ্রেটেড নারকেল, এক টেবিল চামচ মিছরি এবং আধাকাপ বিশুদ্ধ পানি। এসব উপদান ব্লেন্ডারে দিয়ে ব্লেন্ড করে নিন। এক ধরনের স্মুদি তৈরি হবে। একে ছেঁকে নিতে পারেন। তৈরি হবে এক সুস্বাদু পানীয়। এটি খেয়ে দেখুন, দেহ-মন জুড়িয়ে যাবে। তীব্র গরমে বেশ আরাম এনে দেবে এই পানীয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here