ডিভিডেন্ড আয়ের করমুক্ত সীমা ৫০ হাজার টাকা করার প্রস্তাব

স্টাফ রিপোর্টার : পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি হতে প্রাপ্ত ডিভিডেন্ড আয়ে করমুক্ত সীমা বাড়ল। ২০১৯-২০ অর্থবছরে ডিভিডেন্ড আয়ের করমুক্ত সীমা ৫০ হাজার টাকা করার প্রস্তাব করা হয়েছে। আগে ডিভিডেন্ড আয়ের করমুক্ত সীমা ছিল ২৫ হাজার টাকা।

২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেট বক্তৃতায় এ কথা জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তাফা কামাল। এবার তিনি ‘সমৃদ্ধির সোপানে বাংলাদেশ, সময় এখন আমাদের’শিরোনামে প্রথম বাজেট উত্থাপন করেন।

অর্থমন্ত্রী বলেন, এই বাজেটে পুঁজিবাজারের জন্য অনেক প্রণোদনা থাকছে। পুঁজিবাজারে বিনিয়োগকে উৎসাহিত করার জন্য বিশেষ প্রণোদনার ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে।

তিনি বলেন, ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীদের প্রণোদনা প্রদান এবং পুঁজিবাজারকে শক্তিশালী করার জন্য ব্যক্তিশ্রেনীর করদাতার হাতে পাবলিকলি ট্রেডেড কোম্পানি হতে প্রাপ্ত ডিভিডেন্ড আয়ের করমুক্ত সীমা ২৫ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৫০ হাজার টাকা নির্ধারণের প্রস্তাব করছি।

তিনি বলেন, ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীদের প্রণোদনা প্রদান এবং পুঁজিবাজারকে শক্তিশালী করার জন্য ব্যক্তিশ্রেনীর করদাতার হাতে পাবলিকলি ট্রেডেড কোম্পানি হতে প্রাপ্ত ডিভিডেন্ড আয়ের করমুক্ত সীমা ২৫ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৫০ হাজার টাকা নির্ধারনের প্রস্তাব করছি।

অর্থমন্ত্রী বলেন, নিবাসী কোম্পানির ডিভিডেন্ড আয়ের উপর একাধিকবার করারোট রোধ করার বিধান গত বছর কার্যকর করা হয়েছিল। বিদেশী বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগে উতসাহিত করার জন্য এ বছর নিবাস ও অনিবাসী সকল কোম্পানির ক্ষেত্রে এ বিধান কার্যকর করার প্রস্তাব করছি। এর ফলে নিবাসী কোম্পানির পাশাপাশি অনিবাসী কোম্পানির ডিভিডেন্ড আয়ের উপরও একাধিকবার করারোপণ হবে না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here