‘চ্যালেঞ্জিং মুহূর্ত পার করছে পোশাক খাত’

স্টাফ রিপোর্টার : বর্তমানে দেশের পোশাক খাত অত্যন্ত চ্যালেঞ্জিং মুহূর্ত পার করছে। যদিও আমাদের রফতানি গত বছরের তুলনায় কিছুটা বৃদ্ধি পেয়েছে তবে দাম, পণ্যের বৈচিত্র্যকরণ, উৎপাদন ব্যয় এবং ভবিষ্যতের মান বাড়ানোর মতো বিভিন্ন মাত্রায়ও চ্যালেঞ্জগুলি দেখা যাচ্ছে বলে জানান শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান চুং ওয়েন কু।

বৃহস্পতিবার, ২৬ ডিসেম্বর রাজধানীর বারিধারায় ডিওএইচএস কনভেনশন সেন্টারে শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজের বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) তিনি এ কথা জানান।

তিনি বলেন, বর্তমানে ব্যবসায়ে আমাদের পণ্যের উৎপাদন ব্যয় যেভাবে বেড়েছে সেভাবে পণ্যের দাম বাড়েনি। দেশে পণ্যের মেটারিয়ালসের দাম বাড়ছে, শ্রমিকের ব্যয় বাড়ছে, অন্যান্য ব্যয়ও বাড়ছে কিন্তু পণ্যের দাম বাড়ছে না বরং কমছে। তবে আমরা পণ্যের উৎপাদন ব্যয় কিভাবে কমানো যায় সেই চেষ্টা করছি।

২০১৮-১৯ অর্থবছরে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড ১০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ দিয়েছে। যেখানে গত বছর ১২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল কোম্পানিটি।

আলোচ্য সময়ে চার কোটি টাকা ব্যাংকের লোনের লাভ পরিশোধ করেছে কোম্পানিটি। তাই শেয়ারহোল্ডাররা দাবি জানিয়েছেন যদি ব্যাংকের শট টাইম লোন না থাকতো তাহলে কোম্পানিটি নগদ লভ্যাংশ দিতে পারত। তাই শর্ট টাইম লোন কমিয়ে রাইট শেয়ার বাড়ানোর পরামর্শ দিয়েছেন শেয়ারহোল্ডাররা।

কোম্পানি ২৮৬ কোটি ৭৫ লাখ টাকা আয় করেছে। যেখানে ২০১৭-১৮ অর্থবছরে আয় হয়েছিল ২৭৬ কোটি ৭৩ লাখ টাকা। কর-পরবর্তী নিট মুনাফা হয়েছে ১২ কোটি ২৭ লাখ ৬৪ হাজার টাকা, আগের হিসাব বছরে যা ছিল ১৫ কোটি ৬৭ লাখ ৬৯ হাজার টাকা। এ হিসাবে সমাপ্ত হিসাব বছরে কোম্পানিটির নিট মুনাফা কমেছে ৩ কোটি ৪০ লাখ টাকা।

২০১৮-১৯ অর্থবছরে শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড বার্ষিক নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে শেয়ারহোল্ডারদের  ১০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ প্রদানের সুপারিশ করে। বিনিয়োগকারীরা এ লভ্যাংশ অনুমোদন দেয়।

শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের চেয়ারম্যান চুং ওয়েন কুই এর সভাপতিত্বে বার্ষিক সাধারণ সভায় উপস্থিত ছিলেন কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক কেও ওয়েন ফু, কোম্পানির পরিচালক ইয়াং মিং তে, কেও চেন তেছাই ও কোম্পানির স্বতন্ত্র পরিচালক মনজুর আলম খান । বার্ষিক সাধারণ সভা সঞ্চালনা করেন কোম্পানি সেক্রেটারি মো. আবু জাফর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here