গোল্ডেন হার্ভেস্টের নতুন উদ্যোগ

স্টাফ রিপোর্টার : দেশের বাজারে বিখ্যাত ভারতীয় কোম্পানি জুবিল্যান্ট ফুডওয়ার্কস লিমিটেডের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে গত বৃহস্পতিবার থেকে রাজধানীর ধানমন্ডির ২ নম্বর সড়কে স্থাপিত আউটলেটের মাধ্যমে ডোমিনোজ পিজ্জা পরীক্ষামূলকভাবে বিক্রি শুরু করেছে গোল্ডেন হার্ভেস্ট।

১৫ মার্চ ডোমিনোজ পিজ্জার গ্র্যান্ড ওপেনিং অনুষ্ঠিত হবে। সূত্র ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই)

দেশের বাজারে ডোমিনোজ পিজ্জা বাজারজাত করার লক্ষ্যে গত বছরের মার্চে গোল্ডেন হার্ভেস্টের সহযোগী প্রতিষ্ঠান গোল্ডেন হার্ভেস্ট কিউএসআর লিমিটেডের সঙ্গে ভারতীয় জুবিল্যান্ট গ্রুপের প্রতিষ্ঠান জুবিল্যান্ট ফুডওয়ার্কসের একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

গোল্ডেন হার্ভেস্ট ও জুবিল্যান্ট গ্রুপের যৌথ উদ্যোগে গঠিত প্রতিষ্ঠানটির নাম জুবিল্যান্ট গোল্ডেন হার্ভেস্ট লিমিটেড। এতে জুবিল্যান্ট ফুডওয়ার্কস লিমিটেডের ৫১ শতাংশ ও গোল্ডেন হার্ভেস্ট কিউএসআর লিমিটেডের ৪৯ শতাংশ শেয়ার থাকবে।

অন্যদিকে, গোল্ডেন হার্ভেস্ট কিউএসআরে মূল প্রতিষ্ঠান গোল্ডেন হার্ভেস্ট এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজের ৩০ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। এর ফলে বাংলাদেশে ডোমিনোজ পিজ্জার ব্যবসায় গোল্ডেন হার্ভেস্ট এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজের অংশীদারিত্ব দাঁড়াবে ১৪ দশমিক ৭০ শতাংশে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বিশ্বের সবচেয়ে বড় পিজ্জা চেইন ডমিনাসের কার্যক্রম শুরু হয় ১৯৬০ সালে। বিশ্বের ৮৫টি দেশে ১৫ হাজার ৩০০-এর বেশি আউটলেটের মাধ্যমে কার্যক্রম চালাচ্ছে ডোমিনোজ পিজ্জা। ২০১৭ সালে বিশ্বব্যাপী ১ হাজার ২২০ কোটি ডলারের সমপরিমাণ পিজ্জা বিক্রি করেছে ডোমিনোজ। প্রতিষ্ঠানটিতে বর্তমানে ৪ লাখেরও বেশি কর্মী রয়েছে।

প্রতিদিন ২০ লাখ পিজ্জা গ্রাহকদের কাছে সরবরাহ করে ডোমিনোজ, বছরে যার পরিমাণ ৭৩ কোটি। আউটলেট সংখ্যার বিচারে যুক্তরাষ্ট্রের পরই রয়েছে ভারতের জুবিল্যান্ট। ভারতের পিজ্জার বাজারের শীর্ষস্থানে থাকা জুবিল্যান্ট ২৬৯টি শহরে ১ হাজার ১৬৭টি ডোমিনোজ পিজ্জার রেস্টুরেন্ট পরিচালনা করছে। ভারত, শ্রীলংকা, বাংলাদেশ ও নেপালের বাজারে ডোমিনোজ পিজ্জার প্রধান ফ্র্যাঞ্চাইজি হচ্ছে জুবিল্যান্ট ফুডওয়ার্কস লিমিটেড।

জুবিল্যান্ট ২০১০ সালে ভারতের স্টক এক্সচেঞ্জে তালিকাভুক্ত হয়।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here