করোনা ভাইরাস : ২৪ ঘন্টায় সর্বোচ্চ আক্রান্ত ১০৩৪, মৃত্যু ১১

স্টাফ রিপোর্টার : দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১১ জনের। একই সময়ে দেশে করোনায় আক্রান্ত ব্যক্তি শনাক্ত হয়েছেন ১০৩৪ জন। নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ৭২৬৭টি। পরীক্ষা হয়েছে ৭২০৮টি।

সোমবার, ১১ মে ২০২০ স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা এসব তথ্য জানান। দেশের করোনাভাইরাস পরিস্থিতি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত এ ব্রিফিং অনলাইনে হয়।

আইডিসিআর সূত্রে জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজধানী ঢাকার রাজারবাগে আক্রান্তের সংখ্যা রয়েছে সর্বচ্চো স্থানে। এ পর্যন্ত স্থানটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২০২ জন। তবে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরো ২ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এরপর ২য় অবস্থানে রয়েছে যাত্রবাড়ি। গত ২৪ ঘণ্টায় যাত্রাবাড়িতে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছে ৪ জন। এখন পর্যন্ত যাত্রবাড়িতে মোট সংক্রমণের সংখ্যা ১৮৬ জন। যা গত ৮ মে’তে ছিল ১৬৯ জন।

আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় স্থানে রয়েছে মুগদা। এই এলাকাতে সর্ব মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৮০ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ২৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন। চতুর্থ স্থানে রয়েছে কাকরাইল এলাকা। এখানে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৩ জন। এ পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৭৬ জন। ৫ম সর্বোচ্চ আক্রান্ত এলাকার স্থানে রয়েছে মহাখালি। এখানে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ১ জন। এ পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৬০ জন।

আইডিসিআর সূত্রে আরো জানা গেছে, ৬ষ্ঠ সর্বোচ্চ আক্রান্ত এলাকার স্থানে রয়েছে মোহাম্মদপুর। এখানে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আর কেউ আক্রান্ত হননি। এ পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৪৯ জন। এরপর সপ্তম স্থানে রয়েছে লালবাগ। এলাকাটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১০৮ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ২ জন। অষ্টম অবস্থানে রয়েছে তেজগাঁও। গত ২৪ ঘণ্টায় যাত্রাবাড়িতে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছে ৪ জন। এখন পর্যন্ত মোট সংক্রমণের সংখ্যা ১০৫ জন। যা গত ৮ মে’তে ছিল ৯৮ জন।

উল্লেখ্য, দেশে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত (কোভিড-১৯) প্রথম রোগী শনাক্ত হয় গত ৮ মার্চ। ১৮ মার্চ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here