আরও ২ বছরের জন্য গভর্নর পদে নিয়োগ পেলেন ফজলে কবির

স্টাফ রিপোর্টার : আরও দুই বছরের জন্য বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর পদে নিয়োগ পেয়েছেন ফজলে কবির। রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে বুধবার, ১৫ জুলাই তাকে নিয়োগ দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করে অর্থ মন্ত্রণালয়।

আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের উপসচিব মো. জেহাদ উদ্দিন স্বাক্ষরিত আদেশে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ ব্যাংক (সংশোধনী) আইন ২০২০ এর অনুচ্ছেদ ১৩(৩) এবং ১০(৫) এর বিধান অনুযায়ী ফজলে কবিরকে তার বয়স ৬৭ বছর পূর্ণ হওয়া পর্যন্ত অর্থাৎ ২০২২ সালের ৩ জুলাই পর্যন্ত বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হলো।

এতে আরও বলা হয়, ফজলে কবির গভর্নর পদে নিয়োজিত থাকাকালীন সরকারের সঙ্গে সম্পাদিত চুক্তির শর্ত মোতাবেক বেতন-ভাতা ও অন্যান্য সুবিধাদি বাংলাদেশ ব্যাংক হতে গ্রহণ করবেন। এ নিয়োগের অন্যান্য বিষয় উল্লেখিত চুক্তিপত্র দ্বারা নির্ধারিত হবে। জারিকৃত এ আদেশ অবিলম্বে কার্যকর হবে।

এর আগে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের বয়স নির্ধারিত ছিল ৬৫ বছর। সরকার দুই বছর বাড়িয়ে ৬৭ বছর করে আইন পাস করেছে জাতীয় সংসদের সর্বশেষ অধিবেশনে।

২০১৬ সালের ১৫ মার্চ ফজলে কবিরকে চার বছরের জন্য বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর হিসেবে চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দিয়েছিল সরকার। তিনি ওই বছরের ২০ মার্চ বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর হিসেবে যোগদান করেন। সেই অনুযায়ী তার চুক্তিভিত্তিক নিয়োগের মেয়াদ গত ২০ মার্চ শেষ হয়। পরে সরকার তার মেয়াদ আরও সাড়ে তিন মাস বাড়ায়। গত ৩ জুলাই সেই মেয়াদও শেষ হয়। গভর্নরের অবর্তমানে ডেপুটি গভর্নর-১ এসএম মনিরুজ্জামান ও ডেপুটি গভর্নর-২ আহমেদ জামাল তার দায়িত্ব পালন করছিলেন। অবশেষে আবার ফজলে কবিরকে নিয়োগ দেওয়া হলো।

অর্থ মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, বর্তমানে করোনা ভাইরাসের ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে এক লাখ কোটি টাকারও বেশি প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করা হয়েছে। এ প্যাকেজ বাস্তবায়ন হবে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গাইডলাইনে। তাই সরকার ফজলে কবিরকে আরও দুই বছরের জন্য নিয়োগ দিল।

এর জন্য বিরোধীদের আপত্তি সত্ত্বেও বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের চাকরির মেয়াদ দুই বছর বৃদ্ধির বিল গত ৯ জুলাই সংসদে পাস হয়েছে। সেদিন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের পক্ষে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান জাতীয় সংসদে ‘বাংলাদেশ ব্যাংক অর্ডার (অ্যামেন্ডমেন্ট) বিল-২০২০’ পাসের প্রস্তাব করলে তা কণ্ঠভোটে পাস হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here