পূর্ব ও মধ্য ইউরোপ ছাড়ছে টেলিনর

বুধবার টেলিনরের এক বিবৃতিতে বলা হয়, হাঙ্গেরি, বুলগেরিয়া, মন্টেনিগ্রো ও সার্বিয়ায় তাদের মোবাইল ফোন সেবার কার্যক্রমের পাশাপাশি প্রযুক্তি সেবার প্রতিষ্ঠান টেলিনর কমন অপারেশন কিনে নিচ্ছে পিপিএফ গ্রুপ।

রয়টার্স জানিয়েছে, ব্যবসা বিক্রির ওই অর্থ থেকে টেলিনর তাদের শেয়ার হোল্ডারদের প্রতি শেয়ারে ৪.৪০ নরওয়েজিয়ান ক্রোনার ডিভিডেন্ড দেবে। তাতে ব্যয় হবে মোট ৬.৬ বিলিয়ন ক্রোনার বা ৮৫৫ মিলিয়ন ডলার। বাকি টাকা তারা ব্যয় করবে ঋণ শোধ, নিজেদের শেয়ার কিনে নেওয়া ও নতুন ব্যবসা অধিগ্রহণে।

টেলিনরের প্রধান নির্বাহী সিগভে ব্রেক্কে বিবৃতিতে বলেন, টেলিনর এখন স্ক্যান্ডিনেভিয়া ও এশিয়ার দেশগুলোতে তাদের লাভজনক এলাকাগুলোতে আরও বেশি মনোযোগ দেবে।

মধ্য ও পূর্ব ইউরোপে টেলিনরের সাড়ে তিন হাজার কর্মী ৯০ লাখ গ্রাহককে সেবা দিয়ে আসছেন। ২০১৭ সালে সেখান কে ১১.৮ বিলিয়ন ক্রোনার আয় করেছে টেলিনর যা তাদের মোট বিক্রির ৯ শতাংশের মত।

বিশ্লেষকদের উদ্ধৃত করে রয়টার্স লিখেছে, যে দামে টেলিনর তাদের ব্যবসা বিক্রি করছে তা ধারণার চেয়ে কিছুটা কম হলেও ইউরোপের টেলিকম বাজারের সঙ্গে মোটামুটি সামঞ্জস্যপূর্ণ। তবে শেয়ার হোল্ডারদের তারা যে ডিভিডেন্ড দিচ্ছে, তা তুলনামূলকভাবে কম বলে মনে করছেন কেউ কেউ।

পিপিএফ গ্রুপের সঙ্গে চুক্তির আগে মোট ১২টি দেশে মোবাইল ফোন সেবার ব্যবসা চালিয়ে আসছিল টেলিনর। এর মধ্যে নরডিক অঞ্চলের তিনটি দেশ, এশিয়ার পাঁচটি এবং মধ্য ও পূর্ব ইউরোপের চার দেশ মিলিয়ে তাদের মোট গ্রাহক ছিল ১৭ কোটি ৬০ লাখ।

আসছে জুনের মধ্যে অধিগ্রহণের পুরো প্রক্রিয়া শেষ করা যাবে বলে আশা করছে পিপিএফ গ্রুপ। তারা জানিয়েছে, চুক্তি অনুযায়ী ২০২১ সালের মাঝামাঝি সময় পর্যন্ত তারা নতুন কেনা সেবায় টেলিনরের ব্র্যান্ড ব্যবহার করে যেতে পারবে।

নরওয়ের টেলিনর বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল ফোন অপারেটর গ্রামীণফোনের ৫৫ দশমিক ৮ শতাংশ শেয়ারের মালিক। গ্রামীণফোনের গ্রাহক সংখ্যা বর্তমানে সাড়ে ছয় কোটির বেশি, যা দেশের মোট মোবাইল ফোন সেবাগ্রহীতার প্রায় অর্ধেক।

বাংলাদেশ ছাড়াও থাইল্যান্ড, মালয়েশিয়া, পাকিস্তান ও মিয়ানমারে ব্যবসা রয়েছে টেলিনরের। চীনের পর বিশ্বের সবচেয়ে বড় টেলিকম বাজার ভারতে প্রতিযোগিতায় টিকতে না পেরে টেলিনর তাদের সাড়ে চার কোটি গ্রাহকের ব্যবসা গতবছর এয়ারটেলের কাছে বিক্রি করে দেয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here